between E-commerce Business & Traditional business

between E-commerce Business & Traditional business

ই-কমার্স বিজনেস এবং ট্রেডিশনাল বিজনেসের মধ্যে পার্থক্য নিয়ে এই বিষয়টা খুবই গুরুত্বপূর্ণ আপনি যখন জানতে পারবেন যে নরমালি ট্রেডিশনাল বিজনেসের কিভাবে হচ্ছে এবং বিজনেসটা কিভাবে চলছে এই দুটো জিনিস এর ভিতর পার্থক্য টা সেটা জানার মাধ্যমে আপনি খুব সহজেই বুঝতে পারবেন যে একচুয়ালি বিজনেস শুরু করা উচিত কি উচিত না

E-commerce Business & Traditional business


between E-commerce Business & Traditional business
 E-commerce Business & Traditional business

E-commerce Business & Traditional business


তাছাড়া আপনি যদি আমাদের যদি না দেখে থাকেন যেখানে বিজনেস শুরু করতে পারেন এটা সম্বন্ধে বলা হয়েছে যদি আপনি না দেখে থাকেন তাহলে অবশ্যই আপনি আমাদের আগের ভিডিওটা দেখে নিবেন তো চলুন আমরা আর কথা না বাড়িয়ে চলে যাই এবং আমরা দেখিনি যথেষ্ট কঠিন শুরু করতে চান তো নরমাল আপনি যদি কোন প্রোডাক্ট নিয়ে কাজ করতে চান সেক্ষেত্রে আপনাকে কি করতে হবে আপনাকে একটা অবশ্যই শোরুম আপনাকে নিতে হবে আপনাকে টি স্টল নিতে হবে সেই স্টল নেওয়ার পর সেখানে কিন্তু আপনাকে প্রোডাক্ট নিয়ে আসতে হবে এবং সেখানে আপনার সেলস মার্কেটিং একাউন্টস এর কথা যদি বলেন আপনাকে অনেক কিছু মিলন করতে হবে প্রতি মাসে মাসে ভারতের বিভিন্ন বিষয় আছে এটার গঠন প্রণালী বিষয়টা কিন্তু খুবই সহজ একটা ওয়েব সাইটে আপনি কি করছেন এবং অর্ডার করলো এবং তার কাছে আপনি প্রোডাক্ট পৌঁছে দিলেন  এবং সেখানে আপনাকে আপনাকে টাকার প্রয়োজন থেকে প্রোডাক্ট নিতে হয় কিন্তু এক্ষেত্রে এখানে কিন্তু আপনারা যে কাস্টমার যারা আছে তাদের কিন্তু শরীরে কিন্তু উপস্থিত থাকার প্রয়োজন পড়ে না তারা ওয়েবসাইটের মাধ্যমে প্রোডাক্ট প্রোডাক্ট ছবিগুলো দেখলে এবং প্রোডাক্ট বর্ণনা তারা জানতে পারবে এবং সেখান থেকে তারা অর্ডার করতে পারছে সুতরাং আপনি যদি আপনার আসে কিন্তু আপনার তাদের থাকতে হচ্ছে না এবং জিনিসটা আপনি আপনি প্রচুর পরিমাণে করতে পারছেন তারপর আপনি যেটা বলেছিলাম একটা নিতে গেলে সেখানে আপনাকে এডভান্স করতে হবে এবং সেখানে আপনার প্রতি মাসে মাসে আপনাকে ভাড়া গুনতে হবে আপনার চেয়ার-টেবিল আপনার প্রয়োজন পড়বে আপনার টাকা খরচ আছে সবকিছু মিলে এখানে যথেষ্ট পরিমাণে খরচ অনেক টাকা খরচ পড়বে কিন্তু আপনাকে কিন্তু আপনি শুরু করতে পারছে না স্বপ্নাকে আব্রাহিম করতে হচ্ছে মার্কেটিং করতে হচ্ছে এখানে আপনি যদি টিভি বিজ্ঞাপন দিয়ে থাকেন অথবা আপনি যদি আপনি দিবেন আর এখানে খরচ আছে লাইটিংয়ের এখানে খরচ আছে এবং মার্কেটিং পারসেন্ট চার্জ আছে এবং প্রতিমাসে আপনার ভাড়া দিতে হবে এবং আপনার সেলারি দিতে হবে তা জানতে পারবেন যেখানে বাধ্যতামূলক কাস্টমারের কাছে কিন্তু আপনি শিপিং কস্ট অফ নিতে পারছেন ট্রেডিশনাল বিজনেসের প্রচুর পরিমাণে ইনভেস্টর প্রয়োজন এবং এটা আপনার অবশ্যই লাগবে কারণ যেটা আমি বারবার বলছি যে আপনার প্রোডাক্ট এবং আপনার নামটাই যথেষ্ট পরিমাণে একটা ব্যাকআপ সবকিছু মিলে আপনাদের পরিমাণে আপনাকে ইনভেস্টমেন্ট নিয়ে আপনাকে শুরু করতে হচ্ছে আর বিজনেস ক্ষেত্রে এখানে ইনভেসমেন্ট এখানে জরুরী না এখানে আপনার যদি না করতে পারেন আপনি কিন্তু শুধুমাত্র ফেসবুকের মাধ্যমে চালু রাখতে পারেন সুতরাং আপনার হচ্ছেনা বাধ্যতামূলক করতে পারেন শুধুমাত্র আপনার একটা ওয়েবসাইট আর কিছুই না দেখুন এখানে একটা প্রোডাক্ট যখন আপনি আপনার বাপের কাছ থেকে কাস্টমারের কাছে যখন যাবে বা আপনার শোরুম থেকে এখানে কোন একজন কাস্টমার কাছে যদি যেতে হয় সাধারণত এখানে অনেকগুলো কাজ এখানে করতে হয় এখানে আপনি আপনার সাপ্লায়ের কাছ থেকে আপনি একটা প্রোডাক্ট নিবেন আপনি অর্ডার করবেন সেখানে আসবে আসার পর দেন আপনি মার্কেটিং করছেন মার্কেটিং মার্কেটিং করেন এখানে কাস্টমার আপনার শরীরে আপনার আসছেন তাদের কাছে আপনি প্রশ্ন করছেন তাদের কাছে যদি ভালো লাগে আপনার প্রোডাক্টের নিলাম তারপর এরকম কোন কিছু করার প্রয়োজন নেই আপনার সাথে কন্টাক করে আপনার একটা বার বার যে কথাটা আপনার কাছে আপনার সাথে সরাসরি আপনার সাথে যোগাযোগ করতে পারছেন আপনার কিন্তু আপনার কাছ থেকে নিতে পারছে কিন্তু এক্ষেত্রে আপনি এবং আপনার করতে পারছেনা কাস্টমার  কিন্তু অনেক ক্ষেত্রে শুধুমাত্র 1000 কাজ করতে বিদেশে ক্ষেত্রে টান কাউন্টেবল আমি বলব কারণ আপনি চাইলে সারা বাংলাদেশব্যাপী ভাষার বিশ্বব্যাপী আপনি কিন্তু মার্কেটিং আপনি করতে করতে পারছেন আপনার প্রোডাক্ট গুলা নিয়ে আসা অথবা আপনার পোস্টগুলো সাজানোর বিষয়ে একজন যদি কাস্টোমার আশে পাশে আপনার শোরুমে থাকি আবার সবগুলো বিষয় ঘুরে ঘুরে দেখানো এবং আপনারা তো সবকিছু বুঝিয়ে দেওয়া কিন্তু আপনার আপনার ড্রাগিস্টস্ করা যথেষ্ট খরচ এবং যথেষ্ট কঠিন কিন্তু এক্ষেত্রে আপনার কিন্তু খরচ খুবই কম হয়ে যাবে কন্ডিশনার বিজনেস ম্যান টু ম্যান আপনি যদি মার্কেটিং করতে যান একজন ব্যক্তি যে আপনি এমন করতে যাচ্ছেন এবং একজন ব্যক্তিকে আমি যদি বলে যে খুব ভালো মতন করে এলাকার ভিতরে সৈনিকরা বাসায় গিয়ে আপনার দোদন দুজন ব্যক্তি মিলা প্রতিদিন 200 করলে দুইজন ব্যক্তির জন্য আপনাকে আবার মিনিমাম 1000 টাকা করে কিন্তু আপনি 500 টাকা করে 1000 টাকা দিতে হবে যদি আপনি ইভেন্ট ম্যানেজমেন্ট বলা হয় সেগুলো কতগুলি 6 থেকে 10 হাজার টাকা খরচ হয়ে যাবে এখানেই কোন বিজনেস এক্ষেত্রে অবশ্য সেটা আপনার ডিজিটাল মার্কেটিং হবে অর্থাৎ অনলাইন মার্কেটিং টা হবে অনলাইন মারকেটিং স্ত্রতেজি এবং খুবই কম খরচে আপনি প্রচুর পরিমাণে ট্রাফিক আছে আপনি যেতে পারছেন আপনারা আশা করি বুঝতে পেরেছেন যে ই-কমার্স বিজনেস ডেভেলপমেন্ট কেন শুরু করা উচিত 


আশা করি বন্ধুরা এই সম্পর্কে আপনাদের ধারণা হয়ে গেছে। আপনাদের বন্ধুদের সাথে সিয়ার করতে বুলবেন আজকে এই পর্যন্ত।

Post a comment

0 Comments